পাবনায় শিশু অপহরণের পর মোবাইলে মুক্তিপণ দাবি পাবনায় শিশু অপহরণের পর মোবাইলে মুক্তিপণ দাবি – দৈনিক পাবনা
  1. admin@dainikpabna.com : admin :
  2. rakibhasnatpabna@gmail.com : Rakib Hasnat : Rakib Hasnat
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:০০ অপরাহ্ন
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ০৭:০০ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
চাটমোহর উপজেলা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতার ঘোষণা দিলেন আতিকুর রহমান আতিক পাবনায় ভোট না করায় চেয়ারম্যানের বাড়িতেই চেয়ারম্যানকে হুমকি দিল আ.লীগ নেতা! ৮ বছর আগে মারা গেছেন, প্রধান আসামি করে ভূমি কর্মকর্তার মামলা! চরতারাপুরে শিক্ষককে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টা মামলার আসামী আমিরুল গ্রেপ্তার সাদুল্লাপুর ইউনিয়নে দৃষ্টিনন্দন ‘গোলঘর’ শুভ উদ্বোধন  পাবনায় দপ্তরীর হাতে প্রাথমিক শিক্ষক লাঞ্চিত পাবনা বিআরটিএ অফিসে দালালদের আখড়া, টাকা ছাড়া ফাইল জমা হয়না! শরীফার গল্প’ নিয়ে যে সিদ্ধান্ত হলো সেন্টমার্টিনে বেড়াতে গিয়ে বিসিএস ক্যাডার হ্যাপী নিখোঁজ সুজানগরে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী শাহিনুজ্জামান শাহীনের উঠান বৈঠক

পাবনায় শিশু অপহরণের পর মোবাইলে মুক্তিপণ দাবি

নিজস্ব প্রতিনিধি, সাঁথিয়া
  • আপডেট সময় : ২ বছর আগে
  • ১৩২ বার পঠিত

পাবনার সাঁথিয়া উপজেলার এক শিশু সন্তান জুনাইদ (৩) ঢাকার আশুলিয়া থেকে অপহৃত হয়েছে। দীর্ঘ এক সপ্তাহ পর আজ শুক্রবার মুক্তিপণ চেয়ে শিশুটির বাবার কাছে অজ্ঞাত ব্যক্তির কল এসেছে বলে জানা গেছে।

অপহরণের শিকার শিশু জুনাইদ সাঁথিয়া উপজেলার পাগলা গ্রামের শাজাহান-রাশিদা দম্পতির ছেলে।

জানা যায়, শাজাহান ও তাঁর স্ত্রী রাশিদা দম্পতি তাদের ৩ সন্তান-রাশিদুল, বায়েজিদ ও জুনাইদকে নিয়ে সাত-আট বছর আগে পাবনার সাঁথিয়া থেকে চাকরির উদ্দেশ্যে ঢাকার আশুলিয়ায় আসেন। এসে শাজাহান শ্রমিক ও রাশিদা খাতুন স্থানীয় ইয়ং ওয়ান নামের একটি পোশাক কারখানায় কাজ শুরু করেন। এরই মধ্যে গত ৮ এপ্রিল আশুলিয়ার ইউনিক দাদা ভাই মার্কেট সংলগ্ন বাসার গেটের বাইরে থেকে তাঁদের ৩ বছরের সন্তান জুনাইদ হারিয়ে যায়। পরে বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজির পরও জুনাইদকে না পেয়ে শাজাহান ওই দিনই আশুলিয়া থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। ঘটনার ৭ দিন পর আজ সকালে অজ্ঞাত ব্যক্তি শাজাহানের মোবাইল ফোনে কল দিয়ে ১ এক লাখ টাকা দাবি করেন। এ ঘটনায় সন্তানকে জীবিত উদ্ধারে পাগলপ্রায় হয়ে পড়েছেন শিশু জুনাইদের বাবা ও মা রাশিদা।

শিশুটির বাবা শাজাহান বলেন, ‘আমার সুখের সংসারে সন্ত্রাসীরা হানা দিয়েছে। আমার সাথে এলাকার কারও খারাপ সম্পর্ক ছিল না। শুক্রবার সকাল থেকে ফোনে মুক্তিপণের জন্য অজ্ঞাত একজন টাকা দাবি করে আসছে।’

অভিযোগের দায়িত্বপ্রাপ্ত উপপরিদর্শক (এসআই) আওয়াল হোসেন বলেন, ‘নিখোঁজ ডায়েরির পর থেকেই আমরা শিশুটিকে উদ্ধারের চেষ্টা করে যাচ্ছি। দেশের বিভিন্ন থানায় সন্ধান চেয়ে তথ্য পাঠানো হয়েছে।’

মোবাইল মুক্তিপণ দাবি করে কলের বিষয়ে এসআই বলেন, ‘টাউট বাটপারেরা দুর্বলতার সুযোগ নিয়ে শিশুটির বাবার কাছে টাকা চেয়ে থাকতে পারে।

দৈনিকপাবনা/আরএইচ

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২২ দৈনিক পাবনা
Themes Customized By Shakil IT Park