পরিবেশকদের ৩৫ কোটি টাকা ফেরত না দেওয়ার অভিযোগ ইউনিভার্সাল ফুডের বিরুদ্ধে পরিবেশকদের ৩৫ কোটি টাকা ফেরত না দেওয়ার অভিযোগ ইউনিভার্সাল ফুডের বিরুদ্ধে – দৈনিক পাবনা
  1. admin@dainikpabna.com : admin :
  2. rakibhasnatpabna@gmail.com : Rakib Hasnat : Rakib Hasnat
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:৫০ অপরাহ্ন
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:৫০ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
চাটমোহর উপজেলা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতার ঘোষণা দিলেন আতিকুর রহমান আতিক পাবনায় ভোট না করায় চেয়ারম্যানের বাড়িতেই চেয়ারম্যানকে হুমকি দিল আ.লীগ নেতা! ৮ বছর আগে মারা গেছেন, প্রধান আসামি করে ভূমি কর্মকর্তার মামলা! চরতারাপুরে শিক্ষককে কুপিয়ে হত্যাচেষ্টা মামলার আসামী আমিরুল গ্রেপ্তার সাদুল্লাপুর ইউনিয়নে দৃষ্টিনন্দন ‘গোলঘর’ শুভ উদ্বোধন  পাবনায় দপ্তরীর হাতে প্রাথমিক শিক্ষক লাঞ্চিত পাবনা বিআরটিএ অফিসে দালালদের আখড়া, টাকা ছাড়া ফাইল জমা হয়না! শরীফার গল্প’ নিয়ে যে সিদ্ধান্ত হলো সেন্টমার্টিনে বেড়াতে গিয়ে বিসিএস ক্যাডার হ্যাপী নিখোঁজ সুজানগরে নৌকার মনোনয়ন প্রত্যাশী শাহিনুজ্জামান শাহীনের উঠান বৈঠক

পরিবেশকদের ৩৫ কোটি টাকা ফেরত না দেওয়ার অভিযোগ ইউনিভার্সাল ফুডের বিরুদ্ধে

দৈনিক পাবনা ডেস্ক
  • আপডেট সময় : ৯ মাস আগে
  • ২৬৬ বার পঠিত

পাবনার ইউনিভার্সাল ফুড লিমিটেডের ২৪০ জন পরিবেশকের থেকে ৩৫ কোটি টাকা নিয়েও কোন মালামাল সরবরাহ না করেনি প্রতিষ্ঠানটি। টাকা ফেরত না দিয়ে পলাতক হয়েছেন ইউনিভার্সাল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সোহানী হোসেন। ১৯ মাসেও টাকা ফেরত পায়নি ভুক্তভোগীরা।

বৃহস্পতিবার (২০ জুলাই) রাতে পাবনা প্রেস ক্লাবের কনফারেন্স হলে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এমন অভিযোগ করেন প্রতিষ্ঠানটির পরিবেশকরা। এর আগে বিকেলে পাবনা জেলা পরিষদ চত্ত্বর- আব্দুল হামিদ রোডে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করে বিভিন্ন দাবি-দাওয়া পেশ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে তারা অভিযোগ করেন,  পাবনা শহরের দিলালপুরে অবস্থিত ইউনিভার্সাল ফুড লিমিটেডের টেষ্টি স্যালাইনসহ বিভিন্ন পণ্য  সারা দেশে পরিবেশকরা নিষ্ঠার সঙ্গে কমিশনের ভিত্তিতে পরিবেশন করে আসছেন।  ২৪০ জন পরিবেশক ২০২২ সালের জানুয়ারি থেকে বিভিন্ন সময়ে পন্যের জন্য কোম্পানির নিকট ব্যাংকিং চ্যানেল এর মাধ্যমে পন্য পাওয়ার শর্তে কোটি কোটি টাকা পাঠিয়েছে। টাকা পাওয়ার পর কোম্পানির পক্ষে থেকে তাদের পণ্য না দিয়ে কালক্ষেপন করতে থাকে।

এমতবস্থায় কোম্পানির প্রতিনিধিদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে নানা অজুহাতে পন্য না দিয়ে তালবাহানা শুরু করে। তখন কোম্পানির মালিক ড. সোহানী হোসেনের সঙ্গে পণ্য বাবদ পাওনা ৩৫ কোটি টাকা কবে এবং কিভাবে ফেরত পাবে, এ ব্যাপার নিয়ে কথা বললে তিনি বিভিন্ন তালবাহানায় সময়ক্ষেপন করেন। পরবর্তীতে ভুক্তভোগীদের চাপের মুখে গত বছরের নভেম্বর মাস হতে ৩ মাসের মধ্যে তাদের নিকট পন্য সরবরাহ করে ব্যবসা চলমান রাখবে বলে সোহানী হোসেন স্বাক্ষরীত ইউনিভার্সাল কোম্পানীর নিজস্ব প্যাডে লিখিত দেন। যার মেয়াদ চলতি বছরের ফেব্রুয়ারী মাসে শেষ হয়।

কিন্তু তাদের টাকা এবং পন্য কোনটাই বুঝে পায়নি। কোম্পানীর মালিক এবং প্রতিনিধিগণ পরিবেশকদের সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে। সর্বশেষ গত কোরবানির ঈদের পরে টেষ্টি স্যালাইন চালু করে পাওনাদারদের টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার আশ্বাস করেন। গত ১০ জুলাই প্রতিষ্ঠান প্রধান সোহানী হোসেনের সঙ্গে দেখা করতে আসলে মেডাম ঢাকা গেছেন আপনাদের সঙ্গে ২০ জুলাই দেখা করবেন বলে প্রতিষ্ঠানের এক কর্মকর্তা জানান। বৃহস্পতিবার ২০ জুলাই সকালে পাবনায় এসে সোহানী হোসেনের সঙ্গে সারাদিন ধরে যোগাযোগ করেও সম্ভব না হওয়ায় বিক্ষোভ- মানববন্ধন ও সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।

লিখিত বক্তব্যে তারা আরও অভিযোগ করেন, বিভিন্ন জেলার এবং থানার ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী সরকারি নিয়ম অনুসারে সঠিকভাবে ব্যবসা পরিচালনা করে আসছে তারা। ইউনিভার্সালকে টাকা দিতে গিয়ে ব্যাংক এবং বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও এনজিও থেকে চড়া সুদে ঋণ নিয়েছেন। পণ্য ও টাকা কোনটাই না পেয়ে আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে ঋণের সুদ দিতে দিতে নিঃস্ব হয়েছেন। তাদের অনেকের বাড়ি ঘর বিক্রি করে দিতে হয়েছে। ঋণ পরিশোধ করতে গিয়ে। আবার অনেকের ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিতে হয়েছে মূলধনের অভাবে।

ঝিনাইদহ থেকে আসছেন ব্যবসায়ী রবিউল ইসলাম।  তিনি বলেন, আমি ইউনিভার্সাল থেকে ৫৪ লাখ টাকা পাবো। আমরা ১২ থেকে ১৫ বারের মত আসছি পাবনায়। কিন্তু সোহানী মেডামের দেখা পাইনি। বিভিন্ন তালবাহানা করেছেন। আমরা কেউ এখনো টাকা পাইনি। এখন বাধ্য হয়ে রাস্তায় নেমে আসছি। দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেলে যা হয় আরকি। টাকা ফেরত না পাওয়া পর্যন্ত আমরা বাড়িতে ফিরে যাবো না। আমরা প্রধানমন্ত্রীর নিকট সাক্ষাৎ করতে চাই।

ইউনিভার্সাল ফুডের পরিবেশক কামাল হোসেন অভিযোগ করে বলেন, সোহানী হোসেন আমাদের মালামাল দেওয়ার কথা বলে ডিলারদের থেকে ৩৫ কোটি টাকা নিয়ে মালামাল সাপ্লাই বন্ধ করে দিয়েছেন। আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছি।

 তিনি আরও বলেন, সোহানী হোসেন টাকা দেওয়ার ব্যবস্থা না করে পলাতক হয়েছেন। দেশের বিভিন্ন জেলা থেকে আমরা এখানে এসে অসহায়ের মত হয়ে গেছি। আমাদের কর্মসূচি না করতে হুমকি দিচ্ছে। কোটি কোটি টাকা এখানে আটকে থাকায় আমাদের ব্যবসা শেষ হয়ে গেছে। আমাদের কম্পানিতে যারা চাকরি করত তারা এখন মানবেতর জীবনযাপন করছে।পাওনা টাকা ফেরত পেতে দেশনেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা ও রাষ্ট্রপতি মো: সাহাবুদ্দিন মহোদয়ের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, ইউনিভার্সাল ফুডের পরিবেশক মো:  কামাল হোসেন,  মো: শফিকুল ইসলাম, বিমলেন্দু ভট্টাচার্য,  একে সাইফুদ্দিন বাবলু,  রানা হোসেন, নয়ন হোসেন, ফারহান ইসলাম, অশোক রায়, পলাশসহ দেশের সব জেলা থেকে ৮০ জনের মত পরিবেশক উপস্থিত ছিলেন।

 এ বিষয়ে যোগাযোগ করতে ইউনিভার্সাল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সোহানী হোসেনকে মোবাইলে পাওয়া যায়নি। তবে গ্রুপের পাবলিক রিলেশন অফিসার ফয়সাল মোর্শেদ টিটু ঢাকা পোস্টকে বলেন, আমাদের কিছু কথা আছে। তাদের পাওনার বিষয়ে হিসেব নিকেশ করতে হবে। তারা যেহেতু টাকা পাবে তাই সোহানী মেডামের সঙ্গে কথা বলে পাওনাদারদের টাকা ফিরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হবে।

পাবনার পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সী ঢাকা পোস্টকে বলেন, ভুক্তভোগীরা আমাদের কাছে আসছিল। বলেছি পুলিশতো এভাবে টাকা তুলে দিতে পারে না। আপনারা অভিযোগ দিয়ে মামলা করলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নিতে সর্বাত্বক সহযোগিতা করব। আমরা প্রতিষ্ঠান প্রধানকে বলেছি তাদের টাকা ফিরিয়ে দিতে বলেছি। এ বিষয়ে পুলিশ সর্বাত্বক সহযোগিতা করবে।

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২২ দৈনিক পাবনা
Themes Customized By Shakil IT Park